[

নতুন দিল্লি: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, সংবিধান দিবস উপলক্ষে সংসদের সেন্ট্রাল হলে বক্তৃতা করার সময়, বাবা আম্বেদকর, ডঃ রাজেন্দ্র প্রসাদ এবং মহাত্মা গান্ধীর মতো দূরদর্শী ব্যক্তিত্বদের স্মরণ করেছিলেন। প্রধানমন্ত্রী মোদি বলেছিলেন যে একবার এই পবিত্র স্থানে কিছু লোক কয়েক মাস ধরে ভারতের দক্ষ ভবিষ্যতের জন্য চিন্তাভাবনা করেছিল। এদিন সন্ত্রাসী ঘটনাও ঘটে। সন্ত্রাসীদের মোকাবেলায় নিরাপত্তা বাহিনী তাদের জীবন উৎসর্গ করেছিল। স্বাধীনতা আন্দোলনে যাঁরা আত্মত্যাগ করেছেন তাঁদের সকলের প্রতিও প্রণাম জানাই।

ত্যাগীদেরও শ্রদ্ধার সাথে স্যালুট: প্রধানমন্ত্রী মোদী

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বলেছেন, ‘আজ 26/11 আমাদের জন্য একটি দুঃখজনক দিন, যখন দেশের শত্রুরা দেশের ভিতরে এসে মুম্বাইয়ে সন্ত্রাসী ঘটনা ঘটিয়েছে। ভারতের অনেক সাহসী সৈন্য সন্ত্রাসীদের মোকাবেলা করতে গিয়ে নিজেদের উৎসর্গ করেছিল। আমি আজ 26/11 তারিখে সেই সমস্ত ত্যাগীদের প্রতি শ্রদ্ধার সাথে প্রণাম করছি।

হাজার বছরের ঐতিহ্যের সংবিধান : প্রধানমন্ত্রী

তিনি আরও বলেন, ‘আমাদের সংবিধান শুধু বহু ধারার সমষ্টি নয়, আমাদের সংবিধান সহস্রাব্দের মহান ঐতিহ্য, একশিলা ধারা সেই ধারার আধুনিক প্রকাশ। এই সংবিধান দিবসটিও উদযাপন করা উচিত কারণ আমাদের যেভাবে আছে, তা সঠিক কি না তা মূল্যায়ন করার জন্য উদযাপন করা উচিত।

সরাসরি সম্প্রচার

,

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

You missed